রংপুরের বদরগঞ্জে জান্টু মেম্বারের বাসা থেকে ৮ জুয়ারি গ্রেফতার
রংপুর অফিস: রংপুরের বদরগঞ্জ পৌর শহরের  ৩নং ওয়ার্ডে  স্টেশন পাড়ায় আইয়ুব আলী ওরফে জান্টু মেম্বারের বাসায় পুলিশ অভিযান চালিয়ে জুয়ার আসর থেকে বদরগঞ্জ পৌর মেয়র উত্তম সাহার ভাতিজা বিধান সাহাসহ ৮ জুয়ারিকে  গ্রেফতার করা হয়। গত বুধবার রাতে গোপন সংবাদের ভিক্তিতে বদরগঞ্জ থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) আরিফ আলীর নেতৃত্বে স্টেশন পাড়ায় জান্টু মেম্বারের বাসা বাড়িতে ওই জুয়ার আসরে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়।
পুলিশ সূত্রে জানা যায়, আইয়ুব আলী ওরফে জান্টু উপজেলার লোহানীপাড়া ইউনিয়ন মেম্বার। বদরগঞ্জ উপজেলা মেম্বার অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি আইয়ব আলী ওরফে জান্টু। সে দীর্ঘদিন ধরে নিজ বাসায় টাকার বিনিময়ে জুয়ার আসর চালিয় আসছে। অভিযানে গ্রেফতারকৃত অন্যরা হলেন- পৌর শহরের বালুয়াভাটা এলাকার প্রফেসরপাড়ার আবু বক্কর সিদ্দিকের ছেলে এনদাদুল হক এনদা(৪৫), মেনহাজুল ইসলামের ছেলে তারাজুল ইসলাম(৩৫) ও মোহাম্মদ আলী(২৮), লিচুবাগান এলাকার আফজাল হোসেনের ছেলে নূরুল আমিন(৫০), জামুবাড়ি এলাকার সরদার পাড়ার শমসের আলীর ছেলে খলিলুর রহমান(২৮), গরুহাটি এলাকার জহির উদ্দিনের ছেলে ইসমাঈল হোসেন(৩৮) ও লোহানীপাড়া ইউনিয়নের কাঁচাবাড়ি এলাকার চৌকিদারপাড়ার আব্দুল মালেকের ছেলে হুমায়ুন কবীর(৩৫)।
এ ঘটনায়  বদরগঞ্জ থানা পুলিশ পরিদর্শক ( তদন্ত) আরিফ আলীর বলেন, আমরা গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আমি ও এসআই আখতার হোসেনসহ সঙ্গীয় ফোর্স অভিযান পরিচালনা করে জুয়ার আসর থেকে ৮ জনকে গ্রেফতার করি। এ সময় তাদের কাছ থেকে নগদ টাকা ও জুয়া খেলার সরঞ্জাম উদ্ধার করি।
তবে এ সময় অভিযানের বিসয়টি টের পেয়ে লোহানীপাড়া ইউনিয়নের জান্টু মেম্বার ও দুলাল মেম্বার পালিয়ে গেলেও এসআই আখতার হোসেন বাদী হয়ে বদরগঞ্জ থানায় জুয়া আইনে জান্টু মেম্বারসহ ১০ জনের বিরুদ্ধে মামলা করেন। পরে ৮ জুয়ারিকে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।



বিভাগীয় বার্তা- এর অন্যান্য খবর