পাটগ্রামে সমবায় কর্মকর্তার দুর্নীতির তথ্য পেয়েছেন তদন্ত কর্মকর্তা
স্টাফ রিপোর্টার, পাটগ্রাম: লালমনিরহাটের পাটগ্রামের উপজেলা সমবায় কর্মকর্তা মুহাম্মদ হাসান রকির দুর্নীতির অভিযোগের নানা তথ্য-উপাত্ত পেয়েছেন তদন্তকারী কর্মকর্তা। অভিযোগের প্রেক্ষিতে তদন্ত করতে এসে আরও বেশকিছু অনিয়মের লিখিত ও মৌখিক অভিযোগ পেয়েছেন তিনি বলে সাংবাদিকদের জানান তিনি।
বুধবার (০৫ আগস্ট) বেলা সাড়ে ১১ টার দিকে পাটগ্রাম উপজেলা সমবায় কার্যালয়ে অভিযোগের তদন্তকারী কর্মকতা রংপুর বিভাগীয় সমবায় কার্যালয়ের উপ নিবন্ধক মুহা: শাহীনুর ইসলাম তদন্ত করেন। তদন্ত প্রক্রিয়া শেষে সাংবাদিকদের তিনি এসব কথা বলেন। এসময় উপ সহকারী নিবন্ধক ও লালমনিরহাট জেলা সমবায় কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) ফরিদ উদ্দিন সরকার উপস্থিত ছিলেন।
শাহীনুর ইসলাম বলেন, ‘সাতটি সুনির্দিষ্ট অভিযোগের ভিত্তিতে আমরা এই তদন্ত করতে এসেছি। অভিযোগককারীরা দুর্নীতির বিষয়ে বিভিন্ন কাগজপত্র সরবরাহ করেছে। আমরা কাগজপত্রগুলো দেখেছি। এইসব কাগজপত্র নিয়ে আমরা আরও যাচাই-বাছাই ও পর্যালোচনা করে উর্দ্ধতন মহলকে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেবো।’
তিনি আরও বলেন, ‘পাটগ্রাম উপজেলা সমবায় কর্মকর্তা হিসেবে তার (হাসান রকি) বিরুদ্ধে অনেক অভিযোগ। সুনির্দিষ্ট অভিযোগের বাইরেও আরও অনেকে অভিযোগ করেছে। অভিযোগকারীরা শতভাগ সুষ্ঠু বিচার পাবে বলেও আশ্বস্ত করেন তিনি।
উল্লেখ্য, সম্প্রতি উপজেলা সমবায় কর্মকর্তা মুহাম্মদ হাসান রকির বিরুদ্ধে সমবায় অধিদপ্তরের নিবন্ধক ও মহাপরিচালক বরাবর আর্থিক অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগ করে উপজেলার রংধনু ভোগ্যপণ্য সমবায় সমিতি নামের একটি প্রতিষ্ঠান।



জাতীয় বার্তা- এর অন্যান্য খবর