হাতীবান্ধায় মা-ছেলেকে মারধর
স্টাফ রিপোর্টার, হাতীবান্ধা: লালমনিরহাটের হাতীবান্ধায় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে মা-ছেলেকে মারধরের অভিযোগ পাওয়া গেছে। বর্তমানে মা ও ছেলে হাতীবান্ধা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্স চিকিৎসাধীন রয়েছেন।
এ ঘটনায় গত ১১ আগস্ট হাতীবান্ধা থানায় ৫জনের নাম উল্লেখ করে একটি অভিযোগ করা হয়েছে। এরআগে গত ১০ আগস্ট বিকেলে উপজেলার কেতকীবাড়ি গ্রামে এই ঘটনাটি ঘটেছে।
আহতরা হলেন, উপজেলার কেতকীবাড়ি গ্রামের নলিনী মোহনের স্ত্রী কৃষ্ণা রানী ও ছেলে মিলন।
জানাগেছে, নলিনী মোহনের ক্ষেতের ফষল খায় প্রতিবেশী নুর নাহারের ছাগল। বিষয়টি নুর নাহারকে অবগত করা হয়। পরবর্তীতে ছাগল আবারো ক্ষেতের ফষল খায়। তা নিয়ে বক-বিতন্ডা শুরু হয়। এর এক পর্যায়ে নুর নাহার ও তার লোকজন নলিনী মোহনের স্ত্রী ও ছেলেকে মারধর করেন।  
 এ বিষয়ে নলিনী মোহন বলেন, নুর নাহার আমার স্ত্রী ও ছেলেকে মারধর করেছে। আমি থানায় অভিযোগ করেছি।
এ বিষয়ে নুর নাহার বলেন, আমি অসুস্থ। আমার অপারেশন করা হয়েছে। ঠিকমত হাটতে পারি না। আমি ওদের কোন মারধর করি নাই। বরং ওরা আমাকে মারধর করেছে।
এ বিষয়ে হাতীবান্ধা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ওমর ফারুক বলেন,  আভিযোগ পাওয়া গেছে। তদন্ত করে ব্যাবস্থা গ্রহন করা হবে।


জাতীয় বার্তা- এর অন্যান্য খবর