গোড়ল দাখিল মাদ্রাসা’র খেলার মাঠ অবৈধ দখলের প্রতিবাদে মানববন্ধন ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত
জাহাঙ্গীর আলম শাহীন: জেলার কালীগঞ্জ উপজেলার গোড়ল ইউনিয়নের গোড়ল দাখিল মাদ্রাসার খেলার মাঠ চিহ্নিত দূর্বত্বরা অবৈধভাবে দখল করেছে। সেখানে ১৫/২০টি পাকা দোকান ঘর নির্মাণ করার কাজ চালিয়ে যাচ্ছে। এই অবৈধ দখলের  প্রতিবাদে আজ বৃহস্পতিবার (২৩ জুলাই) দুপুর ১২ টা হতে ২টা পর্যন্ত মাদ্রাসা প্রাঙ্গণে প্রায় তিন শতাধিক অভিভাবক, শিক্ষার্থী ও এলাকাবাসী ব্যানার ফেষ্টুন নিয়ে বিক্ষোভ, মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ করেছে।
 জানা গেছে, গোড়ল দাখিল মাদ্রাসার সুপার মোবাশে^র আহম্মেদ স্থানীয় জামাতের নেতা। ঐ মাদ্রাসার ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি মোঃ নুর আমীন স্থানীয় প্রভাবশালী ব্যক্তি। এলাকার চিহ্নিত কয়েকজন দূর্বৃত্ব মিলে প্রায় ৫০ লাখ টাকার বিনিময়ে মাদাসার খেলার মাঠে রাতের আঁধারে অবৈধ ভাবে দখল করে নেয়। সেখানে ১৫/২০টি পাকা দোকান ঘর নির্মাণ কাজ চলছে। এই অবৈধ কর্মকান্ডের প্রতিবাদে এলাকাবাসী, অভিভাবক, শিক্ষার্থী ও সুধি সমাজের মধ্যে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়। এই ক্ষোবের বহিপ্রকাশ আজকের আন্দোলন কর্মসূচি। এই আন্দোলনে নেতৃত্ব দেয় সমাজ কর্মী ও অভিভাবক কাশেম আলী (৫০), শাহ আলম (৪০), বেলাল (৩৫), খদর আলী (৫৫), সুরত আলী (৪০), জিল্লুর রহমান জানু (৩২)। শিক্ষার্থীদের মধ্যে নেতৃত্ব দেয় ১০ শ্রেণির ছাত্র মিজান (১৫), ৮ম শ্রেণির ছাত্র ফরিদুল (১৪), ৭ম শ্রেণির ছাত্র আবুল বাশার (১৩), ৭ম শ্রেণির ছাত্র মোঃ জাহিদ হাসান (১৩) প্রমুখ।
অভিভাবক ও শিক্ষার্থীরা বলেন, মাদ্রাসায় বসার বেঞ্চ, ক্লাসরুম ভাঙ্গা, মহিলা কমন রুমের দেয়াল ধ্বসে পড়েছে, খেলার মাঠে সামান্য বৃষ্টিতে পানি জমে যায় ও টিনের চালা ভেঙ্গে গেছে। তা মেরামতের কোন উদ্যোগ নেই। মাদ্রাসায় শিক্ষার পরিবেশ দিন দিন বিনষ্ট হচ্ছে।
এদিকে ২৮৫ জন অভিভাবক ও সুধিজন অবৈধ ভাবে খেলার মাঠ দখলের ঘটনায় লালমনিরহাট ২ আসনের এমপি সমাজ কল্যাণ মন্ত্রী নুরুজ্জামান আহম্মেদ, উপ পরিচালক, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক আঞ্চলিক অফিস, জেলা প্রশাসক, পুলিশ সুপার, জেলা শিক্ষা অফিসার, উপজেলা চেয়ারম্যান, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার, গোড়ল ইউপির চেয়ারম্যানের নিকট স্বারক লিপি দিয়েছে।
উল্লেখ্য, মাদ্রাসার সুপার স্থাণীয় জামাতের নেতা। তিনি গত স্বাধীনতা দিবসের অনুষ্ঠান পালনের সময় জুতা পড়ে শহীদ মিনারে উঠেছিল। এই ঘটনায় জেলায় মুক্তিযোদ্ধা ও স্বাধীনতা প্রেমি মানুষের মাঝে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়ে ছিল। বিষয়টি নিয়ে তার বিরুদ্ধে তদন্ত চলছে। এরই মধ্যে মাদ্রাসার জমি দখলের অভিযোগ উঠে।
জাতীয় বার্তা- এর অন্যান্য খবর